ছাতকে প্রবাসী স্ত্রীকে ভিডিও কলে রেখে এক ব্যক্তির আত্মহত্যা

সুনামগঞ্জের ছাতকে প্রবাসী স্ত্রীকে ভিডিও কলে রেখে সেলিম মিয়া (৪০) নামে এক ব্যক্তি গলায় দড়ি দিয়ে আত্মহত্যা করেছে। সোমবার (২৮ সেপ্টেম্বর) গভীর রাতে ছাতক পৌর শহরের আপন হোটেলের দ্বিতীয় তলায় এ ঘটনাটি ঘটে।

সেলিম মিয়া দোয়ারাবাজার উপজেলার দোহালিয়া ইউনিয়নের পানাইল গ্রামের মৃত ফয়জুর রহমানের ছেলে।

জানা যায়, পেশায় সিএনজি চালক সেলিম মিয়া শহরের আপন হোটেলের দ্বিতীয় তলায় তিন মাস ধরে ভাড়ায় বসবাস করতো। তার স্ত্রী ছামছিয়া বেগম গত দুই বছর ধরে সৌদি আরবে গৃহকর্মীর কাজ করে আসছিলো। দাম্পত্য কলহের জেরে সোমবার রাতে স্ত্রীর উপর অভিমান করে তাকে ভিডিও কলে রেখেই ফ্যানের সাথে রশি ঝুলিয়ে গলায় দড়ি দেন তিনি। সাথে সাথে ছামছিয়া বেগম ফোন কেটে বাড়িতে জানালে লোকজন পৌঁছানোর আগেই মৃত্যুবরণ করে সে।

খবর পেয়ে মঙ্গলবার সকালে ছাতক থানা পুলিশ লাশ উদ্ধার করে এবং ভিডিও কলে ব্যবহৃত মোবাইল ফোনটি উদ্ধার করে।

ছাতক থানার অফিসার ইনচার্জ (ভারপ্রাপ্ত) মিজানুর রহমান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে ময়নাতদন্তের জন্য লাশ সুনামগঞ্জ সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে বলে জানান।